Back

ⓘ পারক্লোরিক অ্যাসিড




পারক্লোরিক অ্যাসিড
                                     

ⓘ পারক্লোরিক অ্যাসিড

টেমপ্লেট:Chembox ConjugateAcidBase

পারক্লোরিক এসিড একটি খনিজ অম্ল, যার রাসায়নিক সংকেত HClO 4 । সাধারণত জলীয় দ্রবণ হিসেবেই এটি লভ্য। এটি একটি বর্ণহীন যৌগ, যা সালফিউরিক এসিড ও নাইট্রিক এসিড অপেক্ষা শক্তিশালী। উষ্ণ অবস্থায় পারক্লোরিক এসিড শক্তিশালী জারক ধর্ম প্রদর্শন করে। কক্ষ তাপমাত্রায় এর ৭০% পর্যন্ত জলীয় দ্রবণ নিরাপদ বিবেচিত হয়, কারণ তখন এটি শক্তিশালী অম্লধর্ম প্রদর্শন করলেও জারক ধর্ম প্রদর্শন করে না। পারক্লোরেট লবণ প্রস্তুতির জন্য পারক্লোরিক এসিড তাৎপর্যপূর্ণ বিবেচিত হয় । এগুলোর মধ্যে অ্যামোনিয়াম পারক্লোরেট রকেটের জ্বালানি তৈরিতে ব্যবহৃত হয়। পারক্লোরিক এসিড অত্যন্ত ক্ষয়কারী পদার্থ। খুব দ্রুতই এটি বিপজ্জনক মিশ্রণ তৈরি করতে পারে।

                                     

1. উৎপাদন

দুইটি পদ্ধতিতে পারক্লোরিক এসিড উৎপন্ন করা হয়। প্রথাগত পদ্ধতিতে জলীয় দ্রবণে অত্যন্ত দ্রবণীয় সোডিয়াম পারক্লোরেট ব্যবহার করা হয়। হাইড্রোক্লোরিক এসিডের সাথে সোডিয়াম পারক্লোরেট দ্রবণের বিক্রিয়ায় পারক্লোরিক এসিড ও কঠিন সোডিয়াম ক্লোরাইড উৎপন্ন হয়:

NaClO 4 + HCl → NaCl + HClO 4

পাতন প্রক্রিয়ায় পারক্লোরিক এসিড পৃথক করা হয়। প্লাটিনাম তড়িৎদ্বারে ক্লোরিনের জলীয় দ্রবণের অ্যানোডীয় জারণের মাধ্যমেও পারক্লোরিক এসিড উৎপন্ন করা সম্ভব হয়; তবে এ প্রক্রিয়ায় লবণের প্রয়োজন পড়ে না।

বিজ্ঞানাগারে প্রস্তুতি

বেরিয়াম পারক্লোরেটের সাথে সালফিউরিক এসিডের বিক্রিয়ায় বেরিয়াম সালফেট উৎপন্ন হয়। নাইট্রিক এসিড ও অ্যামোনিয়াম পারক্লোরেটের মিশ্রণ সিদ্ধ করে তাতে হাইড্রোক্লোরিক এসিড যোগ করেও পারক্লোরিক এসিড উৎপাদন করা সম্ভব হয়। উক্ত বিক্রিয়ায় নাইট্রাস অক্সাইড ও পারক্লোরিক এসিড উৎপন্ন হয়। উদ্বৃত্ত এসিডগুলোকে ফুটিয়ে ঘনীভূত ও বিশুদ্ধ পারক্লোরিক এসিড উৎপাদন করা সম্ভব হয়।

                                     

2. বৈশিষ্ট্য

কক্ষ তাপমাত্রায় অনার্দ্র পারক্লোরিক এসিড অস্থিতিশীল তৈলাক্ত তরলের মত আচরণ করে। এটি কমপক্ষে পাঁচটি হাইড্রেট গঠন করে। ক্রিস্টালোগ্রাফি অনুযায়ী এর কয়েকটির বৈশিষ্ট্য বিশ্লেষণ করা হয়েছে। এগুলো পারক্লোরেট অ্যানায়নের সাথে পানির হাইড্রোজেন বন্ধনের মাধ্যমে গঠিত হয়। এর কেন্দ্রে H 3 O আয়ন অবস্থান করে। পারক্লোরিক এসিডের ৭২.৫% জলীয় দ্রবণ সাধারণভাবে পাতনযোগ্য নয় ; এমনকি তাপমাত্রার পরিবর্তন দ্রবণের প্রকৃতি সহজে পরিবর্তন করতে পারে না। এর ফলে এটি স্থিতিশীল বিবেচিত হয়। বাণিজ্যিকভাবেও এটি পাওয়া যায়। এরূপ দ্রবণ বাতাসে মুক্ত অবস্থায় ছেড়ে দিলে পানি শোষণ করে।

পানি বিয়োজনের ফলে পারক্লোরিক এসিড অনার্দ্র ডাইক্লোরিন হেপটোক্সাইড উৎপন্ন করে। নিচে বিক্রিয়ার মাধ্যমে এটি দেখানো হলো:

2 HClO 4 + P 4 O 10 → Cl 2 O 7 + "H 2 P 4 O 11
                                     

3. ব্যবহার

অ্যামোনিয়াম পারক্লোরেটের পূর্বসূচক হিসেবে প্রচুর পরিমাণে পারক্লোরিক এসিড উৎপন্ন করা হয়। অ্যামোনিয়াম পারক্লোরেট রকেট শিল্পের এক অপরিহার্য অনুষঙ্গ। এর ফলে পারক্লোরিক এসিডের উৎপাদন বহুগুণে বৃদ্ধি পেয়েছে। প্রতি বছর বিশ্বে কয়েক মিলিয়ন পারক্লোরিক এসিড উৎপাদন করা হয়। তরল স্ফটিক শিল্পে এচিং পৃষ্ঠতল পরিষ্কারে অম্লধর্মী পদার্থের প্রয়োগ এবং বৈদ্যুতিক শিল্পের কাজেও এটি ব্যবহৃত হয়। তাই বিশ্লেষণী রসায়নে এর গুরুত্ব অপরিসীম।

পারক্লোরিক এসিড অন্যতম শক্তিশালী ব্রোনস্টেড-লাউরি এসিড। হাইড্রোনিয়াম আয়নের উপস্থিতির ফলে এর অম্লীয় শক্তিমাত্রা -৯ এর নিচে হয়ে থাকে। সংশ্লেষণ বিক্রিয়ায় এটি গুরুত্বপূর্ণ বিক্রিয়ক হিসেবে ভূমিকা রাখে। আয়ন বিনিময় ক্রোমাটোগ্রাফিতেও এর উল্লেখযোগ্য ভূমিকা বিদ্যমান।

                                     

4. নিরাপত্তা

পারক্লোরিক এসিড অত্যন্ত বিপজ্জনক। অ্যালুমিনিয়াম, কাঠ ও প্লাস্টিকের সাথে এটি সহজেই বিক্রিয়া করে ফেলে।

১৯৪৭ সালের ২০ ফেব্রুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যের লস অ্যাঞ্জেলেস শহরে ৭৫% পারক্লোরিক এসিড দ্রবণের ১০০০ লিটার স্নানগাহ বিস্ফোরিত হলে ১৭ জন নিহত ও ১৫০ জন আহত হন।