Back

ⓘ শাহ মুহাম্মদ তৈয়ব




                                     

ⓘ শাহ মুহাম্মদ তৈয়ব

আল্লামা শাহ মুহাম্মদ তৈয়ব ছিলেন একজন বাংলাদেশি ইসলামি পণ্ডিত, হানাফি সুন্নি আলেম, ধর্মীয় আলোচক ও আধ্যাত্মিক ব্যক্তিত্ব। তিনি বাংলাদেশের ৩য় বৃহত্তম কওমি মাদ্রাসা আল জামিয়াতুল আরবিয়াতুল ইসলামিয়া জিরির মুহতামিম ও কওমি মাদ্রাসার সর্ববৃহৎ শিক্ষাবোর্ড বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশের সহ-সভাপতি ছিলেন।

                                     

1. জন্ম ও বংশ

মুহাম্মদ তৈয়ব ১৯৪৩ সালে চট্টগ্রাম জেলার পটিয়া থানার অন্তর্গত জিরি ইউনিয়নের এক মুসলিম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা মাওলানা আব্দুল জাব্বার দারুল উলুম হাটহাজারীর শিক্ষক ছিলেন। সাত বছর বয়সে তার পিতা মারা যান। পিতার মৃত্যুপর চাচা শাহ আহমদ হাসান তার লালন পালন করেন। তার মায়ের নাম সালমা খাতুন।

                                     

2. শিক্ষাজীবন

তিনি ১৯৬৮ সালে আল জামিয়াতুল আরবিয়াতুল ইসলামিয়া জিরি থেকে দাওরায়ে হাদিস মাস্টার্স সম্পন্ন করেন। জামেয়া জিরিতে চার বছর তিনি আব্দুল ওয়াদুদ সন্দ্বীপির সান্নিধ্যে ছিলেন। তার কাছে সহীহ বুখারী ও সুনান আত-তিরমিজী অধ্যায়ন করেছেন। তার অন্যান্য শিক্ষকদের মধ্যে রয়েছেন জামিয়া জিরির ২য় মুহাদ্দিস আল্লামা ছালেহ আহমদ, আল্লামা আবুল খাইর, জামিয়া জিরির সাবেক পরিচালক মুফতি নুরুল হক, হাফেজ ফজল আহমদ, আল্লামা আহমদুল্লাহ কাসেমি সহ প্রমুখ।

                                     

3. কর্মজীবন

শিক্ষাজীবন সমাপ্তিপর তিনি স্বীয় উস্তাদ আবদুল ওয়াদুদ সন্দীপির পরামর্শে আল জামিয়াতুল আরবিয়াতুল ইসলামিয়া জিরিতে শিক্ষকতার মাধ্যমে কর্মজীবনের সূচনা করেন। জামিয়া জিরিতে কিছুকাল শিক্ষকতা করাপর কক্সবাজার মাছুয়াখালী মাদ্রাসায় বদলি হন। এই মাদ্রাসায় দুই বছর প্রধান পরিচালকের দায়িত্ব পালনেপর পুনরায় জামিয়া জিরিতে চলে আসেন।

১৯৮৭ সালে মুফতি নুরুল হক মৃত্যুবরণ করলে তিনি জামিয়া জিরির আচার্য নিযুক্ত হন। আমৃত্যু এই পদে ছিলেন। জামিয়া জিরিতে তিনি তাফসির বিভাগ, ফতওয়া ও গবেষণা বিভাগ এবং কেরাত বিভাগের সূচনা করেন। তিনি এখানে কম্পিউটার প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের ব্যবস্থা করেন।

জামিয়া জিরির পাশে" শারজাহ চ্যারিটি হাসপাতাল” নামে একটি দাতব্য হাসপাতাল নির্মাণ করেন। তিনি" খানখায়ে আবরারিয়া” নামে একটি খানখাহ প্রতিষ্ঠা করেন। জামিয়া জিরির মসজিদ" মসজিদে ত্বোবা” তার আমলে নির্মিত হয়। তিনি ভিংরোল জামেয়াতুল উলুম সহ পাঁচটি মাদ্রাসা প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।

তিনি সারাবছর ওয়াজ-মাহফিলে অংশ নিতেন।

                                     

4. পারিবারিক জীবন

তার সহধর্মিণীর নাম লুৎফুন্নিসা বিনতে আব্দুস সামাদ। তার তিন ছেলে ও চার মেয়ে। ২য় ছেলে মাওলানা খোবাইব পিতার মৃত্যুপর জামিয়া জিরির মুহতামিম আচার্য নিযুক্ত হন।

                                     

5. তাসাউফ

আশরাফ আলী থানভীর খলিফা আবরারুল হক হক্কীর নিকট তিনি মদিনায় বায়’আত গ্রহণ করেন। এর কয়েক বছর পর খেলাফত লাভ করেন। কামরুজ্জামান এলাহাবাদীর সাথেও তার আধ্যাত্মিক সম্পর্ক ছিল।

                                     

6. মৃত্যু

২০২০ সালের রমজানে তিনি মসজিদে ইতেকাফ নিয়েছিলেন। ইতেকাফ শেষে অসুস্থতা বোধ করলে তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ২৪ মে দিবাগত রাতে হাসপাতালে সেজদারত অবস্থায় তিনি মৃৃৃৃত্যুবরণ করেন। পরদিন জুনায়েদ বাবুনগরীর ইমামতিতে জামিয়া জিরির মাঠে তার জানাযা সম্পন্ন হয়। তাকে মাকবারায়ে আহমদ হাসানে দাফন করা হয়।

                                     
  • শ হ ম হ ম মদ ত য ব - ফজল ল হক আম ন - ন র হ স ইন ক স ম - আযহ র আল আন য র শ হ
  • ব ল দ শ প রক শল ব শ বব দ য লয র প রথম ন র উপ চ র য জ. শ হ ম হ ম মদ ত য ব ব ল দ শ ইসল ম পণ ড ত ও আধ য ত ম ক ব যক ত ত ব জ. মকব ল
  • হ ন দ স ত ন ক জঙ গ আজ দ ম ম সলম ন ক খ ন ক হ সস হ ত র ব য হয ছ ল ম হ ম মদ ত য ব ক সম র ম য হ জ র ন জল র স থ ন জল ব শট উর দ উপন য স র ল খ ক
  • ম হ ম মদ ত য ব ম ফত ম হ ম মদ শফ প রম খ ব যক ত বর গ স ল ত ন দ র ল উল ম দ ওবন দ র মজল স শ র র সদস য ন র ব চ ত হন স ল ক র ম হ ম মদ ত য ব র
  • স সদ য সচ ব ছ ল ন হ জর ত দ র ল উল ম দ ওবন দ কত পক ষ ত ক এব ম হ ম মদ ত য ব ক স ম এব হ ফজ র রহম ন স ওহরভ সহ কয কজনক আল গড ম সল ম ব শ বব দ য লয র
  • প ক স ত ন স ন ব হ ন র প র ক তন চ ফ জ ন র ল স ট ফ স জ এস ভ ইস অ য ডম র ল ত য ব আল ড গ র প র ক তন ভ ইস চ ফ অফ ন ভ ল স ট ফ র জ ন দ র প রভ জ স ত র ই - জ র ট
  • ম হম দ, প ক স ত ন ব চ রক ও দ ওবন দ ইসল ম পণ ড ত জ. ম - শ হ ম হ ম মদ ত য ব ব ল দ শ ইসল ম পণ ড ত ও আধ য ত ম ক ব যক ত ত ব জ. ম
  • মধ য রয ছ শ হ আব দ ল ওয হহ ব, ম হ ম মদ ফয জ ল ল হ ইজ জ আল আমর হ ইব র হ ম বল য ভ ম ফত ম হ ম মদ শফ ক র ম হ ম মদ ত য ব ম হ ম মদ জ ক র য ক ন ধলভ

Users also searched:

...