Back

ⓘ বিষয়শ্রেণী:আরবের গোত্র




                                               

আদ

আদ কুরআনে একাধিকবার উল্লেখ করা একটি প্রাচীন গোত্র। আদরা সাধারণত দক্ষিণ আরবে বাস করতো। আল-আহকফ বালুময় সমভূমি বা "বায়ু-বাঁকা বালু পাহাড় নামে পরিচিত একটি স্থানে। আদজাতি একটি সমৃদ্ধ গোত্র গঠন করে। তারা একটি তীব্র ঝড়ে ধ্বংস হয়ে যায়। ইসলামী বর্ণনা মতে, হুদ নামক একজন একেশ্বরবাদী নবীর শিক্ষাকে প্রত্যাখ্যান করার ফলে ঝড় হয় আদজাতিকে মৌলিক আরব গোত্রসমূহের মধ্যে একটি হিসাবে গণ্য করা হয়, "বিলীন আরব"।।

                                               

বনু আবদ শামস

বনু আবদ শামস মক্কার কুরাইশ বংশের একটি শাখা গোত্র। আবদ মানাফ ইবনে কুসাইয়ের ছেলে আবদ শামস ইবনে আবদ মানাফের নামে গোত্রের নামকরণ করা হয়। আবদ শামস ছিলেন মুহাম্মদ এর প্রপিতামহ হাশিম ইবনে আবদ মানাফের ভাই।

                                               

আরবের গোত্র

আরবের গোত্র দ্বারা বোঝায় আরব উপদ্বীপে উদ্ভূত বংশগত বিভিন্ন আরব গোষ্ঠী। মাদ ইবনে আদনানের পূর্বের বংশধারা বাইবেলের উপর নির্ভরশীল তাই আরব বংশধারার এই অংশের সঠিকতা নিয়ে প্রশ্ন রয়েছে। ১৪শ শতাব্দীর আরব বংশলতিকা বিশারদদের মতে আরবদের তিন ভাগে ভাগ করা যেতে পারে: প্রথমত, বিলুপ্ত আরব আরবি: العرب البائدة ‎‎। এরা প্রাচীন আরব গোত্র এবং এদের সম্পর্কে বিস্তারিত জানা যায় না। এদের মধ্যে রয়েছে আদ, সামুদ, তাসম, জাদিস, ইমলাক ও অন্যান্যরা। জাদিস ও তাসম গোত্র গণহত্যার কারণে বিলুপ্ত হয়ে গেছে। আদ ও সামুদ কুরআনে বর্ণিত আল্লাহর আযাবের কারণে বিলুপ্ত হয়ে যায়। প্রত্নতাত্ত্বিক খননের মাধ্যমে আদ জাতির অন্যতম প্রধা ...

                                               

বনু খাযরাজ

আবু মুহাম্মদ আল হাসান ইবনে আহমাদ আল হামদানির মতে বনু খাযরাজ ২য় শতব্দীতে ইসলাম পূর্ব ইয়েমেন থেকে বনু আউসের সাথে ইয়াসরিবে বসতি স্থাপন করেছিল। তবে সময় পরিক্রমায় দুই গোত্র পরস্পর শত্রু হয়ে উঠে।

                                               

বনি উতবাহ্

টেমপ্লেট:History of Kuwait থাম্ব|উল্লিখিত সময়ে প্রদত্ত ঐতিহাসিক তথ্যসূত্রের ভিত্তিতে মানচিত্রটি বর্ণিত হয়েছে। ইসা বিন তরীফের নেতৃত্বে উতুব গোষ্ঠী বনি উতবাহ্ আরব বংশের একটি উপজাতি গোষ্ঠী, যারা নজদ থেকে উদ্ভূত হয়েছে। ষোড়শ শতাব্দীতে একটি গোষ্ঠী পারস্য উপসাগরীয় উপকূলে চলে এলে এই গোষ্ঠীটি গঠিত হয় বলে মনে করা হয়। উতুব হলো বহুবচন, এর এক বচন হল উতবি । বাহরাইন ও কুয়েতের বর্তমান শাসক পরিবারগুলি এই গোষ্ঠীর শাসক।

                                               

বনু আব্দুল কায়েস

বনু আবদুল কায়েস উত্তর আরব গোত্রের রবীআ শাখা থেকে আগত একটি প্রাচীন আরব গোত্র। প্রাক ইসলামী সময়ে, আবদ আল কায়স প্রায়ই ইরান আক্রমণ করতো । তখন তিনি বয়সে পরিণত হয়েছেন, শাপুর দ্বিতীয় আব্দুল কায়সকে শাস্তি দেওয়ার জন্য প্রথম আদেশ দেন। তিনি পারস্য উপসাগরীয় অঞ্চলে একটি সেনা অভিযানের নেতৃত্ব দেন এবং পূর্ব আরব ও সিরিয়ার বৃহত্তর অংশকে ধ্বংস করে দিয়েছিলেন এবং পথে আব্দ আল-কায়েসের অধিকাংশ লোককে হত্যা করেছিলেন। পরবর্তীকালে তার শাসনামলে, শাপুর ইরানের কারমান প্রদেশে অনেক আব্দ আল-কায়েসকে সরিয়ে নিয়ে যান। ইরানের আরব বিজয় লাভের সময়, আবদ আল-কায়েসের বিপুল সংখ্যক সদস্য ইরানে স্থানান্তরিত হয় এবং দক ...

                                     

ⓘ আরবের গোত্র

  • আরব র গ ত র দ ব র ব ঝ য আরব উপদ ব প উদ ভ ত ব শগত ব ভ ন ন আরব গ ষ ঠ ম দ ইবন আদন ন র প র ব র ব শধ র ব ইব ল র উপর ন র ভরশ ল ত ই আরব ব শধ র র এই অ শ র
  • আফফ ন আব স ফ য ন ম য ব য ইবন আব স ফ য ন ইয জ দ ইবন ম য ব য আরব র গ ত র বন আব ব স বন হ শ ম উম ইয খ ল ফত Banu Hashim - Before the Birth of
  • শ য দ র মত ন য য উট র য দ ধ বন জ ম হ গ ত র র একট দল আয শ র পক ষ লড ই কর ছ ল উম ইয ইবন খ ল ফ স ফওয ন ইবন উম ইয উম ইয র ছ ল আরব র গ ত র
  • ম গ র ইবন আবদ ল ল হ হ শ ম ইবন ম গ র ইবন জ য দ ন ইকর ম ইবন আব জ হল আরব র গ ত র Umayyad and ʻAbbásids: Being the Fourth Part of Jurjí Zaydán s History
  • আব বকর উম ম ক লস ম ব নত আব বকর ক স ম ইবন ম হ ম মদ ইবন আব বকর আরব র গ ত র The Origins and Early Development of Shi a Islam p.58 - 079 ওয ব য ক ম শ ন
  • ভ ষ য بنو الأخضري বন আল আকদ র ল খদ র ব শ পশ চ ম আরব র শ র ফ য ন আরব গ ত র ত র ইসল ম র আগমন র সময ইয ম ন অভ ব স হয এব র ব আল খ ল
  • স দ আরব র একত র করণ ছ ল আল স দ কর ত ক পর চ ল ত একট স মর ক ও র জন ত ক অভ য ন স দ পর ব র এত আরব উপদ ব প র অধ ক শ অঞ চল র ব ভ ন ন গ ত র শ খ শ সন ধ ন
  • স ল মদ ন য হ জরত কর ন স খ ন থ ক ত ন স. ও ত র সঙ গ র র আরব র গ ত র গ ল ক ইসল ম র পত ক তল একত র ত কর ন এব আরব উপদ ব প একক আরব ম সল ম
  • হ জ জ র জতন ত র ছ ল হ জ জ অঞ চল র বর তম ন স দ আরব র অন তর ভ ক ত হ শ ম গ ত র দ ব র শ স ত একট র ষ ট র প রথম ব শ বয দ ধ উসম ন য দ র পর জয র পর এট
  • ত র ফ য র য দ ধ স প ট ম বর ক স ম অঞ চল স দ আরব র একত র করণ সময স ঘট ত রশ দ ও স দ দ র মধ য স ঘট ত গ র ত বপ র ণ য দ ধগ ল র মধ য এট অন যতম
  • فيصل بن سلطان الدويش, আন ম ন ক ছ ল ন ম ত য র গ ত র ও ইখওয ন র একজন ন ত স দ আরব র একত র করণ ত ন ইবন স দক সহ য ত কর ন স ল র
আদনানি আরব
                                               

আদনানি আরব

আদনানি আরব প্রাচীন আরবের একটি বংশগত সম্প্রদায়। আরব বংশলতিকা ঐতিহ্য অনুযায়ী আদনানিরা" আরবায়িত আরব” যারা আদনানের বংশধর। আদনান ছিলেন নবী ইসমাইল এর সরাসরি বংশধর। ইসমাইল এর শৈশবাবস্থায় তার মা হাজেরা সহ মক্কায় আসাপর দক্ষিণের কাহতানি আরবরা মক্কায় এসে বসতি স্থাপন করেছিল। আদনান নবী ইসমাইল এর সরাসরি বংশধর হওয়ায় আদনানিরা নবী ইবরাহিম এর বংশধর। শেষ নবী মুহাম্মদ আদনানি আরব ছিলেন।

                                               

বনু আবদ আদ-দার

বনু আবদ আদ দার মক্কার কুরাইশ বংশের একটি শাখা গোত্র। আবদ আদ দার থেকে এই গোত্র উদ্ভব হয়। ঐতিহাসিকভাবে এই গোত্র যুদ্ধের সময় ব্যানার বহন করত।

বনু উমাইয়া
                                               

বনু উমাইয়া

বনু উমাইয়া মক্কার কুরাইশ বংশের একটি শাখা গোত্র। এটি উমাইয়া ইবনে আবদ শামস থেকে উৎপত্তি লাভ করেছে। বনু উমাইয়ার সাথে মক্কার আরেক গোত্র বনু হাশিমের দীর্ঘদিনের দ্বন্দ্ব ছিল। রাশিদুন খিলাফতের পরবর্তী উমাইয়া খিলাফত বনু উমাইয়ার সদস্য সাহাবি মুয়াবিয়া কর্তৃক প্রতিষ্ঠিত হয়।

কুরাইশ
                                               

কুরাইশ

কুরাইশ বংশ ছিল আরবের একটি শক্তিশালী বণিক বংশ। এ বংশটি মক্কার অধিকাংশ অংশ আর কাবা নিয়ন্ত্রণ করত। ইসলাম ধর্মের নবী মুহাম্মদ কুরাইশ বংশের বনু হাশিম গোত্রে জন্মগ্রহণ করেন।

                                               

বনু গাতাফান

বনু গাতাফান মদিনার উত্তরের একটি প্রাচীন গোত্র। বনু আবস, আশগা ও বনু সিবয়ান তাদের থেকে উদ্ভব হয়েছে। তারা মুহাম্মদ এর সাথে সম্পর্কযুক্ত অন্যতম গোত্র। খন্দকের যুদ্ধে তারা মক্কার কুরাইশদের পক্ষালম্বন করে।

                                               

বনু জুমাহ

বনু জুমাহ মক্কার কুরাইশ বংশের একটি শাখা গোত্র। শিয়াদের মতানুযায়ী উটের যুদ্ধে বনু জুমাহ গোত্রের একটি দল আয়িশার পক্ষে লড়াই করেছিল।

বনু তাইম
                                               

বনু তাইম

আবদুর রহমান ইবনে আবু বকর উম্মে কুলসুম বিনতে আবু বকর আয়িশা মুহাম্মাদ ইবনে আবি বকর কাসিম ইবনে মুহাম্মদ ইবনে আবু বকর আবদুল্লাহ ইবনে আবু বকর আবু বকর তালহা ইবনে উবাইদিল্লাহ আসমা বিনতে আবি বকর

                                               

বনু জুহরাহ

বনু জুহরাহ কুরাইশ বংশের একটি শাখা গোত্র। বদরের যুদ্ধের জন্য অগ্রসর হওয়া সেনাবাহিনীতে বনু জুহরাহ গোত্রের লোকেরা ছিল। তবে ক্যারাভান সুরক্ষিত আছে জানতে পেরে তারা বাহিনী ছেড়ে চলে যায়।

                                               

বনু মুযাইনা

বনু মুযাইনা ইসলামী নবী মুহাম্মদের সময়ের একটি আরব গোত্র ছিল। ৬২৭ খ্রিস্টাব্দের সেপ্টেম্বরে ও ইসলামিক ক্যালেন্ডারের ৬ষ্ঠ হিজরিতে তারা জায়েদ ইবনে হারেসার অভিযানে জড়িত ছিল। জায়েদ বিন হারেসার নেতৃত্বে একটি প্লাটুনকে একই বছরে বনু সেলিমের আবাসস্থল আল জুমুমে পাঠানো হয়। একদল অমুসলিম কে বন্দী করা হয়েছিল। বনু মুযাইনার একজন মহিলাকেও আটক করা হয় এবং তিনি তাদের শত্রুর শিবিরের পথ দেখান। বনু মুযাইনা গোত্র ছিল একটি আরব পৌত্তলিক উপজাতি যারা পরবর্তীতে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করে।

বনু মুহারিব
                                               

বনু মুহারিব

বনু মুহারিব ইসলামী নবী মুহাম্মদের যুগে একটি আরব গোত্র ছিল। থি আমর আক্রমণের সময় মুহাম্মদ তাদের বিরুদ্ধে সামরিক অভিযানের নির্দেশ দেন। তিঁনি তার সৈন্যদের বনু মুহারিব এবং বনু তালাবাহ উপজাতিদের উপর হামলা চালানোর আদেশ দেন যখন তিনি গোপন সূত্রে খবর পান যে তারা মদীনার উপকণ্ঠে অভিযান চালাতে যাচ্ছে। ঘাওয়ারাত ইবনে আল-হারিথ দুথার ইবনে আল-হারিথ নামেও পরিচিত এই গোত্রের ছিলো। মুসলামানরা ইরাক বিজয়েপর এ উপজাতি আল-কুফায় বসতি স্থাপন করে।

                                               

বনু সুজা

বনু সুজা ইসলামী নবী মুহাম্মদের যুগেঢ় এক উপজাতি ছিল। তারা পরিখা যুদ্ধে অংশ নিয়েছিল। তারা জুহায়না গোত্রের অন্তর্ভুক্ত ছিল। মুসলিম পণ্ডিত তাবারি তাদের মজাদার যোদ্ধা হিসাবে বর্ণনা করেছেন।

বনু হাশিম
                                               

বনু হাশিম

বনু হাশিম ছিল মক্কার কুরাইশ বংশের একটি গোত্র। ইসলামের শেষ নবী মুহাম্মদ পিতৃসূত্রে এই গোত্রে জন্মগ্রহণ করেন এবং এই গোত্রের একজন সদস্য ছিলেন। তার প্রপিতামহ হাশিম ইবনে আবদ মানাফের নামে এই গোত্রের নামকরণ করা হয়েছিল। গোত্রের নামানুসারে এই গোত্রের সদস্যদের হাশেমি, হাসানী বা হোসেনি বলা হত|