Back

ⓘ বিষয়শ্রেণী:ভারত




                                               

২০১২-এ ভারত

১২ জুলাই: কর্ণাটকের নতুন মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিলেন জগদীশ শেত্তার। ১৪ জুলাই: উপরাষ্ট্রপতি পদে ইউপিএ প্রার্থী নির্বাচিত হলেন হামিদ আনসারি। ১৩ জুলাই: প্রধানমন্ত্রী জিএএআর জেনারেল অ্যান্টি-অ্যাভোয়েডেন্স রুল পুনর্বিবেচনার জন্য প্যানেল গঠন করলেন। ২২ জুলাই: প্রণব মুখোপাধ্যায় ভারতের ত্রয়োদশ রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হলেন। ৪ জুলাই: আদর্শ কেলেঙ্কারি মামলায় চার্জশিটে অশোক চভানের নাম উঠল। ৬ জুলাই: মায়াবতীর বিরুদ্ধে আয়ের সঙ্গে সঙ্গতিহীন সম্পত্তি রাখার মামলা সুপ্রিম কোর্ট কর্তৃক খারিজ।

                                               

২০১৭ ডোকলাম বিবাদ

ডোকলাম বিবাদ বা ২০১৭ সালের চীন-ভারত সীমান্ত বিরোধিতা ভারতীয় সশস্ত্র বাহিনী ও চীনের পিপলস লিবারেশন আর্মির মধ্যকর সীমান্ত বিরোধকে বোঝায়। এই বিরোধ ঘটে চীনের সেনাবাহিনী যখন ডোকলামে সড়ক নির্মান শুরু করে, চীনে ডোকলাম এলাকা ডিক্ল্যাং, বা ডনল্যাং কাওচং নামে পরিচিত। ১৬ জুন ২০১৭ সালে চীনের সৈন্যরা নির্মাণাধীন যানবাহন ও রাস্তাঘাট নির্মাণের সরঞ্জাম দিয়ে দখল করে একটি বিদ্যমান সড়কে দক্ষিণমুখী ভাবে ডোকলাম এলাকাতে নির্মান শুরু করে এবং এই অঞ্চলটি নিজের বলে দাবি করে, যখন ভারত ও ভুটান ভুটানের অঞ্চল হিসেবে বিবেচনা করে। ১৮ ই জুন, ২০১৭ তারিখে চীনের সৈন্যদের রাস্তা নির্মাণের জন্য দোখালাতে অস্ত্র ও অস্ত্রসহ ...

                                               

২০১৮-এ ভারত

৬ অক্টোবর - উত্তর প্রদেশে ট্রেন লাইনচ্যুত হয়ে অন্তত ৫ জন নিহত, ৩০ জন আহত।

                                               

২০১৯ সালের ভারতবর্ষের নির্বাচন

২০১৯ সালের ভারতবর্ষের নির্বাচনে, সাধারণ নির্বাচনে, লোকসভা নির্বাচনে, রাজ্যসভা নির্বাচনে, ছয়টি রাজ্য বিধানসভা পরিষদের নির্বাচনে এবং অন্যান্য বিধানসভা পরিষদ, কাউন্সিল এবং স্থানীয় সংস্থাগুলিতে অন্যান্য উপনির্বাচনে অন্তর্ভুক্ত।

                                               

অশোকচক্র

অশোকচক্র ধর্মচক্রের একটি চিত্রণ; যা ২৪ মুখ দিয়ে প্রতিনিধিত্ব করে। এটি সম্রাট অশোকের অনেক নথিতে দেখা যায়, যার মধ্যে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হল অশোকের সিংহচতুর্মুখ স্তম্ভশীর্ষ। অশোকচক্রের সর্বাধিক দৃশ্যমান ব্যবহার আজ ভারতের জাতীয় পতাকা । এই চক্র পতাকার কেন্দ্রস্থলে অবস্থিত, যেখানে এটি পতাকাবিহীন স্বাধীনতার সংস্করণ চক্এর প্রতীককে পরিবর্তিত করে একটি সাদা পটভূমিতে একটি নিভৃত নীল রঙে উপস্থাপিত হয়। যুদ্ধক্ষেত্র থেকে বীরত্ব, সাহসী পদক্ষেপ বা আত্মাহুতির জন্য দেওয়া ভারতের সর্বোচ্চ মর্যাদাপূর্ণ সামরিক পুরুষ্কারটিকেও বলা হয় অশোকচক্র।

                                               

আসানসোল মহানগর অঞ্চল

আসানসোল মহানগর অঞ্চল বা বৃহত্ত আসানসোহল ভারতের একটি মহানগর।এইটি দেশের ৩৯ তম বৃহত্ত মহানগর এবং পশ্চিমবঙ্গের মধ্যে দ্বিতীয় বৃহত্তম ও পূর্ব ভারতের ৪র্থ বৃহত্ত মহানগর। ২০১১ সালের আদমশুমারি রিপোর্টের ভিত্তিতে গঠিত মহানগর এলাকায় আসনসোল মিউনিসিপাল কর্পোরেশন এএমসি, 3 টি পৌরসভা, কিছু পঞ্চায়েত এবং পঞ্চায়েতের অংশ রয়েছে।তিনটি পৌরসভা হচ্ছে রানিগঞ্জ, কুলতি ও জামুরিয়া।

                                     

ⓘ ভারত

  • র ল মন ত রক ভ রত সরক র র র লওয পর চ লন স ক র ন ত একট গ র ত বপ র ণ মন ত রক ভ রত র ল পর বহণ র একক দ য ত বপ র প ত সরক র স স থ ভ রত য র ল এই মন ত রক র
  • Abbreviations as per ISO 3166 2 PDF য গ য গ ও তথ য প রয ক ত মন ত রক, ভ রত সরক র - - প ষ ঠ - - ত র খ ম ল PDFi থ ক আর ক ইভ
  • ন খ ল ভ রত ফরওয র ড ব লক All India Forward Bloc ভ রত র একট ব মপন থ জ ত য ত ব দ র জন ত ক দল এই দলট স ল ভ রত র জ ত য ক গ র স র ন ত দ র মধ য
  • প রজ তন ত র দ বস প ল ত হয স ল র জ ন য র ত র খ ভ রত শ সন র জন য স ল র ভ রত সরক র আইন র পর বর ত ভ রত য স ব ধ ন ক র যকর হওয র ঘটন ক
  • ভ ট ন র ধ র অর থন ত র জন য ভ রত র অর থন ত ক উদ দ পন প য ক জ - এর অ শ ছ ল ভ রত ভ ট ন ম গ ওয ট র ট জলব দ য ৎ প রকল প পর চ লন কর এব ম গ ওয ট র
  • বর ত তম ন ভ রত ই র জ অন ব দ মড র ন ইড য ব প র জ ন ট ড ইন ড য হল স ব ম ব ব ক নন দ র ল খ একট প রবন ধ এট র মক ষ ণ মঠ ও ম শন র একম ত র ব ল
  • ভ রত মহ স গর হল ব শ ব র ত ত য ব হত তম মহ স গর প থ ব র ম ট জলভ গ র শত শ এই মহ স গর অধ ক র কর আছ এই মহ স গর র উত তর স ম য রয ছ ভ রত য উপমহ দ শ
  • ভ রত সরক র Government of India Bhārat Sarkār সরক র ভ ব ইউন য ন গভর নম ন ট স ধ রণভ ব ক ন দ র য সরক র ন ম ভ রত প রচল ত এট ভ রত র স ব ধ ন দ ব র
  • ঔপন ব শ ক ভ রত ব কল ন য ন ভ রত Colonial India বলত ইউর প য ঔপন ব শ কদ র দ ব র ভ রত য উপমহ দ শ ও ভ রত য মহ র জ দ র উপর ব যবস র ম ধ যম ক ষমত
                                               

রণবীর দণ্ডবিধি

ভারতের জম্মু ও কাশ্মীর রাজ্যের প্রধান ফৌজদারী বিধি হল রণবীর দন্ড বিধি জম্মু ও কাশ্মীর রাজ্য । এটি ১৯৩২ সাল থেকে চালু আছে (বিক্রম সম্ভাতে র মতে এই বিধি ডোগরা রাজবংশের রাজা রণবীর সিংহের রাজত্বকালে এটি চালু হয়। এই আইনবিধি মেকলের ভারতীয় দন্ড বিধির অনুসরণেই তৈরী হয়।

Users also searched:

...