ⓘ Free online encyclopedia. Did you know? page 762




                                               

বালাজী বাজী রাও

বালাজী বাজী রাও, যিনি নানা সাহেব নামেও পরিচিত, ছিলেন ভারতের মারাঠা সাম্রাজ্যের একজন পেশোয়া । তার সময়ে ছত্রপতি মারাঠা রাজা কেবল একজন আনুষ্ঠানিক ব্যক্তিত্বে পরিণত হন। একই সময়ে মারাঠা সাম্রাজ্য একটি কনফেডারেশনে পরিণত হয়, যেখানে বিভিন্ন স্থানীয় ...

                                               

নূর জাহান

নূর জাহান একজন মুঘল সম্রাজ্ঞী যাঁর পিতৃদত্ত নাম ছিল মেহের উন নিসা । ইনি মুঘল সম্রাজ্ঞী ও সম্রাট জাহাঙ্গীরের প্রধান মহিষী ছিলেন । একজন বলিষ্ঠ, সম্মোহনী ও উচ্চশিক্ষিতা নারী হওয়ায় তাকে ১৭শ শতাব্দীর সবচেয়ে প্রভাবশালী নারী ভাবা হয় । ইনি সম্রাট জাহ ...

                                               

নূর জাহানের সমাধি

নূর জাহানের সমাধি মোগল সম্রাজ্ঞী নূরজাহানের জন্য নির্মিত একটি সমাধি। এটি পাকিস্তানের লাহোরে অবস্থিত এক সপ্তদশ শতাব্দীর সমাধি। অষ্টাদশ শতাব্দীতে শিখ আমলে অমৃতসরের স্বর্ণ মন্দিরে ব্যবহারের জন্য সমাধির মার্বেল লুট করা হয়েছিল। লাল বেলেপাথরের সমাধি এ ...

                                               

রাজকন্যা মানমতি

রাজকন্যা মানমতি রাজপুত রাজকন্যা যিনি মুঘল সম্রাট জাহাঙ্গীরের ৩য় স্ত্রী এবং সম্রাট শাহজাহানের মাতা। তাকে মতান্তরে যোধা বাঈ নামেও ডাকা হয়।অনেকের মতে তার আসল নাম জগৎ গোসাই। মৃত্যুপর তার নাম রাখা হয় বিলকিস মাকানি। তিনি ছিলেন মাড়ওয়ারের বর্তমান যো ...

                                               

রুকাইয়া সুলতান বেগম

রুকাইয়া সুলতানা বেগম সম্রাট আকবর এর প্রথম স্ত্রী। তিনি ছিলেন মুঘল সাম্রাজ্য এর সবচেয়ে বেশি সময় কাল জুড়ে থাকা প্রধান রানী। তিনি ৪৯ বছর ধরে সম্রাট আকবর এর প্রধান রানী। তিনি ছিলেন মুঘল রাজকুমার হিন্দাল মির্জার কন্যা। হিন্দাল মিরজা ছিলেন আকবরের ক ...

                                               

বাহাদুর শাহ জাফর

বাহাদুর শাহ জাফর ছিলেন মুঘল সাম্রাজ্যের ১৯তম এবং শেষ সম্রাট। তিনি পূর্বসূরি ও তার বাবা মুঘল সম্রাট দ্বিতীয় আকবরের ২য় সন্তান। সিপাহী বিপ্লবের শেষে ১৮৫৮ খ্রিষ্টাব্দে ব্রিটিশ শাসকেরা তাকে ক্ষমতাচ্যুত করে ও রেঙ্গুনে নির্বাসনে পাঠায়, এবং সেখানেই তা ...

                                               

আওরঙ্গজেব

আওরঙ্গজেব, আল-সুলতান আল-আজম ওয়াল খাকান আল-মুকাররম আবুল মুজাফফর মুহি উদ-দিন মুহাম্মদ আওরঙ্গজেব বাহাদুর আলমগীর I, বাদশা গাজী, প্রথম আলমগীর নামেও পরিচিত, ১৬৫৮ খ্রিষ্টাব্দ থেকে মৃত্যুর আগ পর্যন্ত ৪৯ বছর মুঘল সাম্রাজ্যের শাসক ছিলেন প্রকৃতপক্ষে তিনি প ...

                                               

আকবর

জালালুদ্দিন মুহাম্মদ আকবর ভারতবর্ষের সর্বশ্রেষ্ঠ শাসক। পৃথিবীর ইতিহাস এ মহান শাসকদের অন্যতম মহামতি আকবর নামেও পরিচিত। তিনি মুঘল সাম্রাজ্যের তৃতীয় সম্রাট। পিতা সম্রাট হুমায়ুনের মৃত্যুপর ১৫৫৬ সালে মাত্র ১৩ বছর বয়সে আকবর ভারতের শাসনভার গ্রহণ করেণ ...

                                               

আকবর শাহ দ্বিতীয়

দ্বিতীয় আকবর, যিনি দ্বিতীয় আকবর শাহ নামেও পরিচিত, তিনি ছিলেন ভারতের আঠারোতম মুঘল সম্রাট। তিনি ১৮০৬ থেকে ১৮৩৭ সাল পর্যন্ত রাজত্ব করেছিলেন। তিনি দ্বিতীয় শাহ আলমের দ্বিতীয় পুত্র এবং দ্বিতীয় বাহাদুর শাহের পিতা। ইস্ট ইন্ডিয়া কোম্পানির মাধ্যমে ভা ...

                                               

জাহাঙ্গীর

নুরুদ্দীন মহম্মদ সেলিম বা জাহাঙ্গীর ছিলেন মুঘল সাম্রাজ্যের চতুর্থ সম্রাট। তিনি ১৬০৫ সাল থেকে তার মৃত্যু অবধি ১৬২৭ সাল পর্যন্ত রাজত্ব করেন। তাঁর রাজকীয় নামটির অর্থ বিশ্বের বিজয়ী, বিশ্ব-বিজয়ী।

                                               

জাহানদার শাহ

জাহানদার শাহ মুঘল সম্রাট ছিলেন, যিনি ১৭১২ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ১৭১৩ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত স্বল্প সময়ের জন্য হিন্দুস্তান শাসন করেছিলেন। তিনি সম্রাট বাহাদুর শাহ প্রথম এর পুত্র ছিলেন। ফেব্রুয়ারি ২৭, ১৭১২ খ্রিষ্টাব্দে পিতার মৃত্যুপর তিনি এবং তার ভাই আজিম ...

                                               

দ্বিতীয় শাহ আলম

দ্বিতীয় শাহ আলম, জন্ম নাম আলী গওহর বা আলী গৌহার নিয়ে জন্মগ্রহণ করেন, যিনি ছিলেন ষোড়শ মুঘল সম্রাট এবং দ্বিতীয় আলমগির পুত্র। শাহ আলম একটি ভেঙ্গে পড়া মুঘল সাম্রাজ্যের সম্রাট হন। তাঁর রাজত্বকালে তাঁর ক্ষমতা এতটাই কমে গিয়েছিল যে ফার্সি ভাষায় সু ...

                                               

প্রথম বাহাদুর শাহ

মুয়াজ্জেম বাহাদুর শাহ, শাহ আলম প্রথম নামেও পরিচিত। সপ্তম মুঘল সম্রাট। আওরঙ্গজেবেপর মুঘল সম্রাট হিসাবে তিনি ১৭০৭ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ১৭১২ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত ভারতবর্ষ শাসন করেছেন। পিতা আওরঙ্গজেবের শাসনামলে তিনি বেশ কয়েকবার বিদ্রোহ করে সিংহাসনে আরোহ ...

                                               

ফর‌রুখসিয়ার

আবু’ল মুজ়ফ়্ফ়র মুঈনউদ্দীন মুহাম্মদ শাহ ফ়ার্রুখ়-সিয়ার আলিম আকবর সনি ওয়ালা শান পাদশাহ-ই-বহর-উ-বর, যিনি শাহিদ-ই-মজ়লুম বা ফর‌রুখসিয়ার নামেও পরিচিত, জাহানদার শাহকে হত্যা করে ১৭১৩ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ১৭১৯ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত মুঘল সম্রাট ছিলেন। সুদ ...

                                               

বাবর

মির্জা জহিরউদ্দিন মুহাম্মদ বাবর সাধারণত বাবর, বাবুর নামেই বেশি পরিচিত মধ্য এশিয়ার মুসলমান সম্রাট ছিলেন। তার জন্ম উজবেকিস্তান। তিনি ভারত উপমহাদেশে মুঘল সাম্রাজ্যের প্রতিষ্ঠাতা সম্রাট। তিনি তৈমুর লঙ্গ-এর সরাসরি বংশধর এবং মাতার দিক থেকে চেঙ্গিস খান ...

                                               

মুহাম্মদ আজম শাহ

কুতুব-উদ-দীন মুহাম্মদ আজম, সাধারণভাবে আজম শাহ নামে পরিচিত, সংক্ষেপে মুঘল সম্রাট ছিলেন, যিনি ১৭০৭ সালের ১৪ মার্চ থেকে ৮ জুন ১৭০৭ পর্যন্ত রাজত্ব করেন। তিনি ষষ্ঠ মুঘল সম্রাট আওরঙ্গজেব ও তার প্রধান সঙ্গী দিলরাস বানু বেগমের জ্যেষ্ঠ পুত্র ছিলেন। ১৬৮১ স ...

                                               

মুহাম্মদ শাহ

মুহাম্মদ শাহ ১৭১৯ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ১৭৪৮ খ্রিষ্টাব্দের মধ্যে পর্যন্ত ভারতের মুঘল সম্রাট ছিলেন। তিনি বাহাদুর শাহ প্রথমের নাতি ছিলেন। তিনি মাত্র ১৭ বছর বয়সে সাইদ ভাতৃগণের সাহায্যে সিংহাসনে বসেছিলেন, পরবর্তীকালে তাদের অভ্যুত্থানেই তিনি সিংহাসনচ্যুত ...

                                               

রাফি উদ-দৌলত (দ্বিতীয় শাহজাহান)

রাফি উদ-দৌলত শাহ জাহান দ্বিতীয় নামেও পরিচিত, ১৭১৯ খ্রিষ্টাব্দে স্বল্প সময়ের জন্য মুঘল সম্রাট ছিলেন। তিনি তার ঐ বছরই অকাল প্রয়াত ভাই রাফি উল-দারজাতের উত্তরসূরী ছিলেন, যিনি সাইদ ভাতৃগণ দ্বারা বাদশাহ বলে আখ্যায়িত হয়েছিলেন। তার ভাইয়ের মতন তিনিও ...

                                               

শাহ জাহান

শাহবুদ্দিন মুহাম্মদ শাহ জাহান, মুঘল সাম্রাজ্যের শাসক ছিলেন যিনি ১৬২৮ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ১৬৫৮ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত ভারত উপমহাদেশ শাসন করেছেন। শাহ জাহান নামটি এসেছে ফার্সি ভাষা থেকে যার অর্থ "পৃথিবীর রাজা"। তিনি ছিলেন বাবর, হুমায়ুন, আকবর, এবং জাহাঙ্গ ...

                                               

হুমায়ুন

নাসিরুদ্দিন মুহম্মদ হুমায়ুন মুঘল সাম্রাজ্যের দ্বিতীয় সম্রাট, যিনি ১৫৩০ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ১৫৪০ খ্রিষ্টাব্দ এবং ১৫৫৫ খ্রিস্টাব্দ থেকে ১৫৫৬ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত দুই দফায় আধুনিক আফগানিস্তান, পাকিস্তান এবং ভারতের উত্তরাঞ্চলে রাজত্ব করেছেন। তিনি এই সা ...

                                               

আকবরের সমাধিসৌধ

আকবরের সমাধিসৌধ মুঘল স্থাপত্যের একটি অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ নিদর্শন। ৪৮ হেক্টর জমির ওপর স্থাপিত সমাধিসৌধটি ভারতের উত্তর প্রদেশের আগ্রার শহরতলী সিকান্দ্রাতে অবস্থিত। ১৬০৫ সালে সমাধিসৌধটির নির্মাণ কাজ শুরু হয় এবং ১৬১৩ সালে নির্মাণ সম্পন্ন হয়।

                                               

আতিয়া মসজিদ

আতিয়া মসজিদ বাংলাদেশের টাঙ্গাইল জেলার দেলদুয়ার উপজেলায় অবস্থিত একটি প্রাচীন ঐতিহাসিক মসজিদ যা বাংলাদেশের অন্যতম প্রত্নতাত্ত্বিক নিদর্শন। এই মসজিদটি ষোড়শ শতাব্দীতে নির্মিত হয়েছে এবং এখানে নিয়মিত জামাতে নামাজ আদায় করা হয়। বর্তমানে বাংলাদেশ ...

                                               

আব্দুল রেহমান জিলানি দেহলভী

সৈয়দ আব্দুল রেহমান জিলানী দেহলভি ছিলেন ভারতীয় উপমহাদেশের কাদরী সম্প্রদায়ের একটি উল্লেখযোগ্য সুফি সাধক। তার পূর্বসূরীদের মধ্যে আবদুল কাদির জিলানী ছিলেন। যিনি কাদরী সিলসিলার সূচনা করেছিলেন। দিল্লিতে সিলসিলা প্রতিষ্ঠায় তিনি প্রধান ভূমিকা পালন কর ...

                                               

ওয়াজির খান মসজিদ

ওয়াজির খান মসজিদ পাকিস্তানের পাঞ্জাবের লাহোরে অবস্থিত একটি মুঘল যুগের মসজিদ। সম্রাট শাহজাহানের শাসনামলে ১৬৩৪ সালে এই মসজিদ নির্মাণ শুরু হয় এবং ১৬৪২ সালে নির্মাণ শেষ হয়। মুঘল যুগের মসজিদসমূহের মধ্যে এটি সবচেয়ে সুসজ্জিত হিসেবে স্বীকৃত। মসজিদ খা ...

                                               

খেরুয়া মসজিদ

খেরুয়া মসজিদ বাংলাদেশের অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ প্রত্ননিদর্শন। মুঘল-পূর্ব সুলতানি আমলের স্থাপত্যশৈলীর সঙ্গে মোগল স্থাপত্যশৈলীর সমন্বয়ে নির্মিত এই মসজিদ। প্রায় ৪৩৫ বছর ধরে টিকে থাকা এই মসজিদের অবস্থান বগুড়া শহর থেকে ২০ কিলোমিটার দক্ষিণে শেরপুর উপ ...

                                               

চাটমোহর শাহী মসজিদ

চাটমোহর শাহী মসজিদ বাংলাদেশের একটি প্রাচীন মসজিদ। চাটমোহর উপজেলা হতে আনুমানিক ২০০ গজ দূরে অবস্থিত। এটি বাংলাদের একটি প্রত্নতত্ত্বিক স্থান। এক সময়ে মসজিদটি ধবংসস্তুপে পরিণত হয়েছিল। ১৯৮০’র দশকে বাংলাদেশ প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর এটিকে সম্পুর্ণরূপে নি ...

                                               

চৌবুর্জি

চৌবুর্জি হলো পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশের রাজধানী লাহোরে অবস্থিত একটি মোঘল আমলের স্থাপনা। স্থাপনাটি ১৬৪৬ খ্রিষ্টাব্দে নির্মিত হয়। সম্রাট শাহজাহানের আমলে ভবনটি একটি বৃহৎ বাগানের তোরণ হিসেবে ব্যবহৃত হতো।

                                               

জামে মসজিদ, দিল্লী

মসজিদ-ই জাহান-নুমা, দিল্লিতে অবস্থিত ভারতের অন্যতম বৃহত্তম একটি মসজিদ। সাধারনভাবে এই মসজিদটি জামে মসজিদ নামে পরিচিত। মুঘল সম্রাট শাহজাহান ১৬৪৪ থেকে ১৬৫৬ সালের মধ্যে এই মসজিদটি তৈরি করেন। মসজিদটি তৈরিতে প্রায় ১০ লক্ষ রুপি ব্যয় হয় এবং বর্তমান উজ ...

                                               

জাহাঙ্গীরের সমাধিসৌধ

জাহাঙ্গীরের সমাধিসৌধ পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশের রাজধানী লাহোরের শাহদারা বাগে অবস্থিত। এটি চতুর্থ মুঘল সম্রাট জাহাঙ্গীরের সমাধি, যিনি ১৬০৫ হতে ১৬২৭ সাল পর্যন্ত মুঘল সম্রাজ্য শাসন করেন।

                                               

জ্ঞানবাপি মসজিদ

জ্ঞানবাপি মসজিদ বা আলমগিরি মসজিদ হল মুঘল সম্রাট আওরঙ্গজেব কর্তৃক স্থাপিত একটি মসজিদ। এটি বারাণসী শহরের ললিতা ঘাটের কাছে দশাশ্বমেধ ঘাটের উত্তরে অবস্থিত।

                                               

দাই আঙ্গা মসজিদ

দাই আঙ্গা মসজিদ হলো পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশের লাহোর শহরে অবস্থিত একটি মসজিদ। এটি লাহোর জংশন রেলওয়ে স্টেশনের দক্ষিণ পূর্ব দিকে অবস্থিত। মোঘল সম্রাট শাহজাহানের ধাত্রী দাই আঙ্গার স্মরণে ১৬৩৫ খ্রিষ্টাব্দে এই মসজিদ নির্মাণ করা হয় বলে কথিত আছে।

                                               

ধানমন্ডি শাহী ঈদগাহ

ধানমন্ডি শাহী ঈদগাহ ঢাকার ধানমন্ডি থানায় অবস্থিত একটি প্রাচীন ধর্মীয় স্থাপনা। এটি বাংলাদেশ প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর কর্তৃক তালিকাভুক্ত একটি প্রত্নতাত্ত্বিক স্থাপনা। ১৬৪০ খ্রিষ্টাব্দে বাংলার সুবাদার সম্রাট শাহজাহানের পুত্র শাহ সুজার প্রধান অমাত্য ম ...

                                               

ফতেপুর সিকরি

ফতেপুর সিকরি ভারতের উত্তর প্রদেশের আগ্রা জেলার একটি শহর। সাল ১৫৭১ থেকে ১৫৮৫ অবধি সম্রাট আকবর শহরটিকে মুঘল সাম্রাজ্যের রাজধানী ঘোষণা করেন কিন্তু পরে পাঞ্জাবের একটি ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে তা বাতিল করেন। ১৬১০ সালে শহরটি সম্পূর্ণরূপে বর্জিত করা হয়। ফতে ...

                                               

বাড়িউড়া প্রাচীন পুল

বাড়িউড়া প্রাচীন পুল, যেটি হাতিরপুল নামেই পরিচিত, বাংলাদেশের ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার একটি প্রাচীন পুল বা সেতু। এটি বাংলাদেশ প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তর কর্তৃক প্রত্নতত্ত্ব হিসাবে সংরক্ষিত।

                                               

বাবরি মসজিদ

বাবরি মসজিদ ভারতের উত্তর প্রদেশের, ফৈজাবাদ জেলার অযোধ্যা শহরের রামকোট হিলের উপর অবস্থিত একটি প্রাচীন মসজিদ ছিল। বিশ্বাস করা হয়, এ বাবরি মসজিদ যে স্থানে অবস্থিত ছিল সেটাই ছিল হিন্দু ধর্মের অবতার রামের জন্মস্থান। এই বিষয়টি নিয়ে আঠারো শতক থেকেই হ ...

                                               

বিবি চম্পার সমাধি

এটি চম্পা বিবির মাজার নামেই বেশি পরিচিত । পুরনো ঢাকার চকবাজার থানার সোয়ারীঘাটের চম্পাতলী এলাকার নামকরণ করা হয় চম্পা বিবির নামানুসারে ।তার পরিচয় সমন্ধে সঠিক ইতিহাস পাওয়া যায় নি ।তিনি ছিলেন শায়েস্তা খাঁর উপপত্নী বা পালিত কন্যা । মুনশী রহমান আ ...

                                               

বুলন্দ দরওয়াজা

বুলন্দ দরওয়াজা, ভারতের একটি ঐতিহাসিক স্থাপত্য। বিশ্বের উচ্চতম এই দরজা ভারতের উত্তরপ্রদেশ রাজ্যের ফতেপুর সিকরিতে অবস্থিত। ১৬০১ খ্রিষ্টাব্দে মুঘল বাদশা আকবর এটি তৈরি করেন। বুলন্দ শব্দের অর্থ মহান বা উচ্চ। অর্থাৎ এর অর্থ মহান দ্বার। গুজরাট জয় উপলক ...

                                               

ভাড়ারা শাহী মসজিদ

ভাড়ারা শাহী মসজিদ পাবনা জেলার সদর উপজেলার ভাড়ারা ইউনিয়নের ভাড়ারা গ্রামে অবস্থিত একটি সুপ্রাচীন ঐতিহাসিক মসজিদ। মসজিদটি ১৭৫৭ সালে বাদশাহ শাহ আলমের রাজত্বকালে দৌলত খা-এর পুত্র আসালত খা এই মসজিদটি নির্মাণ করেন।

                                               

মোতি মসজিদ (আগ্রা দুর্গ)

আগ্রার মোতি মসজিদ সম্রাট শাহজাহান নির্মাণ করেন। এটি আগ্রা দুর্গে অবস্থিত। শাহজাহানের শাসনামলে মুঘল স্থাপত্য তার স্বর্ণযুগে প্রবেশ করে। মুক্তার মত দ্যুতির জন্য এই মসজিদের নাম মোতি মসজিদ হয়েছে।

                                               

লাল বাংলা

লাল বাংলা হচ্ছে দুজন প্রয়াত-মুঘল ব্যক্তির সমাধিস্তম্ভ যা ভারতের দিল্লিতে অবস্থিত, যেটি ভারতীয় পুরাতত্ত্ব সর্বেক্ষণ বিভাগের অধীনস্থ একটি সংরক্ষিত স্মৃতিস্তম্ভ।

                                               

লালকেল্লা

লাল কেল্লা খ্রিষ্টীয় সপ্তদশ শতাব্দীতে প্রাচীর-বেষ্টিত পুরনো দিল্লি শহরে মুঘল সম্রাট শাহজাহান কর্তৃক নির্মিত একটি দুর্গ। ১৮৫৭ সাল পর্যন্ত এই দুর্গটি ছিল মুঘল সাম্রাজ্যের রাজধানী। এরপর ব্রিটিশ ভারতীয় সরকার মুঘল সম্রাট দ্বিতীয় বাহাদুর শাহকে নির্ব ...

                                               

শাহী হাম্মাম

শাহী হাম্মাম, ওয়াজির খান হাম্মাম নামেও পরিচিত, হলো পাকিস্তানের লাহোর শহরে অবস্থিত একটি পারস্য শৈলীর হাম্মাম বা স্নানাগার। মোঘল সম্রাট শাহজাহানের আমলে ১৬৩৫ খ্রিষ্টাব্দে হাম্মামটি নির্মাণ করা হয়। মোঘল দরবারের প্রধান চিকিৎসক ইলমুদ্দিন আনসারী এটি ন ...

                                               

সাত গম্বুজ মসজিদ

সাত গম্বুজ মসজিদ ঢাকার মোহাম্মদপুরে অবস্থিত মুঘল আমলে নির্মিত একটি মসজিদ। এই মসজিদটি চারটি মিনারসহ সাতটি গম্বুজের কারণে মসজিদের নাম হয়েছে সাতগম্বুজ মসজিদ। এটি মুঘল সাম্রাজ্য মুঘল আমলের অন্যতম নিদর্শন। ১৬৮০ সালে মুঘল সুবাদার শায়েস্তা খাঁর আমলে ত ...

                                               

সালেহ কামবোহ মসজিদ

সালেহ কামবোহ মসজিদ হল একটি মসজিদ যেটি পাকিস্তানের পাঞ্জাব প্রদেশের লাহোরে অবস্থিত। মসজিদটি তৈরি করেন মুহাম্মাদ সালেহ কামবোহ যিনি শাহজাহানের শাসনামলে রাজদরবারে ঐতিহাসিক হিসেবে কাজ করেছিলেন। মসজিদটি আওরঙ্গজেবের শাসনামলে নির্মিত হলেও এর মাঝে শাহজাহা ...

                                               

হাজী শাহাবাজের মাজার ও মসজিদ

হাজী শাহাবাজের মাজার ও মসজিদ বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকা শহরের রমনা এলাকায় অবস্থিত একটি প্রাচীন মসজিদ। মোগল শাসনামলে শাহজাদা আযমের সময়কালে ১৬৭৯ খ্রিষ্টাব্দে এটি নির্মিত হয়। মসজিদটি হাইকোর্টের পিছনে এবং তিন নেতার মাজাএর পূর্ব পার্শ্বে অবস্থিত। এর চ ...

                                               

হুমায়ুনের সমাধিসৌধ

হুমায়ুনের সমাধিসৌধ হল মুঘল সম্রাট হুমায়ুনের সমাধিসৌধ। ১৫৬২ খ্রিষ্টাব্দে হুমায়ুনের পত্নী হামিদা বানু বেগম এই সমাধিটি নির্মাণ করান। এটির নকশা প্রস্তুত করেছিলেন পারসিক স্থপতি মিরাক মির্জা গিয়াস। হুমায়ুনের সমাধিই ভারতীয় উপমহাদেশের প্রথম উদ্যান- ...

                                               

প্রথম ফারুক

ফারুক ছিলেন মিশরের মুহাম্মদ আলি রাজবংশীয় দশম শাসক। তিনি তার পিতা প্রথম ফুয়াদের উত্তরাধিকারী হিসেবে ক্ষমতালাভ করেছিলেন। তার পূর্ণ উপাধি ছিল, "মহামান্য প্রথম ফারুক, আল্লাহর রহমতে, মিশর ও সুদানের বাদশাহ, নুবিয়া, কুরদুফান ও দারফুরের সার্বভৌম"। ১৯৫ ...

                                               

রাজেন্দ্র বিক্রম শাহ

রাজেন্দ্র বিক্রম শাহ ১৮১৬ থেকে ১৮৪৭ সাল পর্যন্ত নেপালের রাজা ছিলেন । তাঁর রাজত্বকালে রানা বংশের উত্থান ঘটে। ১৮৪৬ সালে, জঙ্গবাহাদুর রানা ক্ষমতায় আসেন এবং পরের বছর, রাজেন্দ্র তাঁর পুত্র সুরেন্দ্রর পক্ষে পদত্যাগ করতে বাধ্য হন।

                                               

খ্রি-উ-দুম-ব্ত্সান

খ্রি-উ-দুম-ব্ত্সান বা গ্লাং-দার-মা খ্রি-গ্ত্সুগ-ল্দে-ব্র্ত্সানের পরবর্তী এবং অন্তিম তিব্বত সম্রাট ছিলেন।

                                               

খ্রি-গ্ত্সুগ-ল্দে-ব্র্ত্সান

৮১৫ খ্রিষ্টাব্দে তিব্বত সম্রাট খ্রি-ল্দে-স্রোং-ব্ত্সানের মৃত্যু হয়। তার পাঁচ পুত্রের মধ্যে বড় পুত্র ল্হাস-রাস-গ্ত্সাংমা বৌদ্ধ ভিক্ষুতে পরিণত হন। পরের দুই পুত্রের বাল্যকালেই মৃত্যু হয়। তার পরবর্তী পুত্র গ্লাং-দার-মা বৌদ্ধ ধর্ম বিরোধী হওয়ায় কন ...