ⓘ Free online encyclopedia. Did you know? page 438




                                               

চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দলের নেতৃত্বে বিরোধীদলগুলি ২০১৪ সালের সাধারণ নির্বাচন বর্জন করে তাদের প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিলে আব্দুল ওদুদ বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন।

                                               

জামালপুর-৫

জামালপুর-৫ আসনটি জামালপুর জেলার সদর উপজেলার কেন্দুয়া, শরীফপুর, লক্ষীচর, তুরসীরচর, ইটাইল, নরুন্দি, ঘোড়াধাপ, বাঁশচড়া, রানাগাছা, শ্রীপুর, শাহবাজাপুর, দিগপাইত ও রশিদপুর ইউনিয়ন নান্দিনা রনরামপুর নিয়ে গঠিত।

                                               

ঝালকাঠি-২

২০০০ সালের মে মাসে জুলফিকার আলী ভুট্টোর মৃত্যু হয়। জুলাই ২০০০ সালের উপ-নির্বাচনে, আমির হোসেন আমুকে পরাজিত করে তার বিধবা পত্নী ইসরাত সুলতানা ইলেন ভুট্টো নির্বাচিত হন।

                                               

ঝিনাইদহ-৪

ঝিনাইদহ-৪ আসনটি ঝিনাইদহ জেলার কালিগগঞ্জ উপজেলা, ঝিনাইদহ সদর জেলার নল ডাংগা ইউনিয়ন, ঘোড়াশাল ইউনিয়ন, ফুরসুন্ধি ইউনিয়ন, মহারাজপুর ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত।

                                               

টাঙ্গাইল-৩

বিরোধীদলগুলি ২০১৪ সালের সাধারণ নির্বাচন বর্জন করে তাদের প্রার্থীতা প্রত্যাহার করে নিলে আমানুর রহমান খান রানা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন। সাংসদ মতিউর রহমান ১৩ সেপ্টেম্বর ২০১২ সালে মারা যান। নভেম্বর ২০১২ সালের উপ-নির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার ...

                                               

টাঙ্গাইল-৪

২০১৪ সালের শেষের দিকে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কের একটি অনুষ্ঠানে হজ ও তাবলিগ জামাত নিয়ে বিরূপ মন্তব্য করেন আব্দুল লতিফ সিদ্দিকী। ফলে তিনি নিজ দল আওয়ামী থেকে বহিষ্কৃত হন ও মন্ত্রিত্ব হারান। ১ সেপ্টেম্বর ২০১৫ সালে তিনি সংসদ থেকে পদত্যাগ ক ...

                                               

টাঙ্গাইল-৫

২০০৮ সালের অনুষ্ঠিত সংসদ নির্বাচনে আবুল কাশেম নির্বাচিত হন। তবে তিনি ঋণ ও বিল খেলাপি উল্লেখ করে দ্বিতীয় বিজয়ী প্রার্থী মেজর জেনারেল অব. মাহামুদুল হাসান হাইকোর্টে নির্বাচনী ট্রাইব্যুনাল আবেদন করেন। একই বছরের ১৫ ডিসেম্বর শুনানিপর হাইকোর্ট রায়ে ত ...

                                               

টাঙ্গাইল-৮

১৯৯৯ সালে আওয়ামী লীগের নেতৃত্ব নিয়ে দলের সঙ্গে মতবিরোধ হলে আবদুল কাদের সিদ্দিকীকে বহিষ্কার করা হয়। তিনি তখন সংসদ থেকে পদত্যাগ করেন, ও স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে নভেম্বর ১৯৯৯ সালের উপ-নির্বাচনে দাড়ান। উপ-নির্বাচনে তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের শও ...

                                               

ঠাকুরগাঁও-২

ঠাকুরগাঁও-২ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি ঠাকুরগাঁও জেলায় অবস্থিত বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের ৪র্থ ও জেলার ২য় সংসদীয় আসন।

                                               

ঠাকুরগাঁও-৩

ঠাকুরগাঁও-৩ ঠাকুরগাঁও জেলার পীরগঞ্জ উপজেলা এবং রানীশংকাইল উপজেলার রানীশংকাইল পৌরসভা ও এ উপজেলার ছয়টি ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত।

                                               

ঢাকা-১

১৯৭৩ সালে ঢাকা-১ নির্বাচনী এলাকা স্বাধীন বাংলাদেশে প্রথম নির্বাচনের সময় গঠিত হয়েছিল। বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ২০০৮ সাধারণ নির্বাচনের পূর্বে, ২০০১ সালে পরিচালিত আদমশুমারির প্রকাশিত জনসংখ্যার পরিবর্তন প্রতিফলিত করার জন্য সংসদের নির্বাচনী এলাকার সী ...

                                               

ঢাকা-২

ঢাকা-২ আসনটি ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ৫৫, ৫৬ ও ৫৭ নং ওয়ার্ড, ঢাকা মেট্রোপলিটন কামরাঙ্গীরচর ও হাজারীবাগ থানার সুন্দরগঞ্জ ইউনিয়ন, সাভার উপজেলার আমিনবাজার ইউনিয়ন, তেঁতুলঝোড়া ইউনিয়ন ও ভাকুর্তা ইউনিয়ন, কেরানিগঞ্জ উপজেলার ৭টি ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত।

                                               

ঢাকা-৫

এটি ঢাকা জেলার ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ৪৮, ৪৯,ও ৫০ নং ওয়ার্ড এবং ঢাকা মেট্রোপলিটনের ডেমরা ইউনিয়ন, দনিয়া ইউনিয়ন, মাতুয়াইল ইউনিয়ন ও সারুলিয়া ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত।

                                               

ঢাকা-৬

ঢাকা-৬ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি ঢাকা জেলায় অবস্থিত জাতীয় সংসদের ১৭৯নং আসন। এ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য কাজী ফিরোজ রশীদ।

                                               

ঢাকা-৭

ঢাকা-৭ আসনটি ঢাকা মহানগরের বংশালের একাংশ, কোতয়ালীর একাংশ, চকবাজার, লালবাগ, কামরাংগীরচর, হাজারীবাগ ও ধানমন্ডির একাংশ নিয়ে গঠিত৷ সীমানাঃ পূর্বে- নাজিরাবাজার, পশ্চিমে- হাজারীবাগ, উত্তরে- পলাশী ও দক্ষিণে- কামরাংগীরচর।

                                               

ঢাকা-৯

ঢাকা-৯ আসনটি ঢাকা মেট্রপলিটন খিলগাঁও সবুজবাগ থানাধীন নাসিরাবাদ ইউনিয়ন, দক্ষিণগাঁও ইউনিয়ন ও মাণ্ডা ইউনিয়ন এবং ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ০১, ০২, ০৩, ০৪, ০৫, ০৬ ও ০৭ নং ওয়ার্ড নিয়ে গঠিত।

                                               

ঢাকা-১০

ঢাকা-১০ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন অবস্থিত জাতীয় সংসদের ১৮৩নং আসন। ধানমন্ডি-নিউমার্কেট-কলাবাগান-হাজারীবাগ থানার সমন্বয়ে গঠিত।

                                               

ঢাকা-১১

ঢাকা-১১ আসনটি ঢাকা মেট্রপলিটন বাড্ড থানা ও ভাটারা থানাধীন বেরাইদ ইউনিয়ন ভাটারা ইউনিয়ন ও সাঁতারকুল ইউনিয়ন এবং ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের ২১, ২২ ও ২৩ নং ওয়ার্ড নিয়ে গঠিত।

                                               

ঢাকা-১৩

ঢাকা-১৩ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি ঢাকা শহরে অবস্থিত জাতীয় সংসদের ১৮৬নং আসন। এ সন আগে ছিল ঢাকা-৯ আসনের অন্তর্ভুক্ত।

                                               

ঢাকা-১৪

২০০১ সালের বাংলাদেশ আদমশুমারিতে জনসংখ্যা বৃদ্ধি লক্ষ করার পর, বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ২০০৮ সালের সাধারণ নির্বাচনের পূর্বে জনসংখ্যার পরিবর্তন প্রতিফলিত করার জন্য সংসদের নির্বাচনী এলাকার সীমানা পুনঃনির্ধারণ করে এই নির্বাচনী আসন সৃষ্টি করে।

                                               

ঢাকা-১৫

২০০১ সালের বাংলাদেশ আদমশুমারিতে জনসংখ্যা বৃদ্ধি লক্ষ করার পর, বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ২০০৮ সালের সাধারণ নির্বাচনের পূর্বে জনসংখ্যার পরিবর্তন প্রতিফলিত করার জন্য সংসদের নির্বাচনী এলাকার সীমানা পুনঃনির্ধারণ করে এই নির্বাচনী আসন সৃষ্টি করে।

                                               

ঢাকা-১৬

২০০১ সালের বাংলাদেশ আদমশুমারিতে জনসংখ্যা বৃদ্ধি লক্ষ করার পর, বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ২০০৮ সালের সাধারণ নির্বাচনের পূর্বে জনসংখ্যার পরিবর্তন প্রতিফলিত করার জন্য জাতীয় সংসদের নির্বাচনী এলাকার সীমানা পুনঃনির্ধারণ করে এই নির্বাচনী আসন সৃষ্টি করে। ২ ...

                                               

ঢাকা-১৭

ঢাকা-১৭ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি ঢাকা শহের অবস্থিত জাতীয় সংসদের ১৯০ নং আসন। এ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য হলেন ফারুক।

                                               

ঢাকা-১৮

২০০১ সালের বাংলাদেশ আদমশুমারিতে জনসংখ্যা বৃদ্ধি লক্ষ করার পর, বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ২০০৮ সালের সাধারণ নির্বাচনের পূর্বে জনসংখ্যার পরিবর্তন প্রতিফলিত করার জন্য জাতীয় সংসদের নির্বাচনী এলাকার সীমানা পুনঃনির্ধারণ করে এই নির্বাচনী আসন সৃষ্টি করে। ২ ...

                                               

ঢাকা-১৯

২০০১ সালের বাংলাদেশ আদমশুমারিতে জনসংখ্যা বৃদ্ধি লক্ষ করার পর, বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ২০০৮ সালের সাধারণ নির্বাচনের পূর্বে জনসংখ্যার পরিবর্তন প্রতিফলিত করার জন্য জাতীয় সংসদের নির্বাচনী এলাকার সীমানা পুনঃনির্ধারণ করে এই নির্বাচনী আসন সৃষ্টি করে। ২ ...

                                               

ঢাকা-২০

২০০১ সালের বাংলাদেশ আদমশুমারিতে জনসংখ্যা বৃদ্ধি লক্ষ করার পর, বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ২০০৮ সালের সাধারণ নির্বাচনের পূর্বে জনসংখ্যার পরিবর্তন প্রতিফলিত করার জন্য জাতীয় সংসদের নির্বাচনী এলাকার সীমানা পুনঃনির্ধারণ করে এই নির্বাচনী আসন সৃষ্টি করে। এ ...

                                               

দিনাজপুর-১

আব্দুল্লাহ আল কাফি ২০০৫ সালের ২২ সেপ্টেম্বরে মৃত্যুবরণ করলে আসনটি শুন্য হয়। ডিসেম্বর ২০০৫-এর উপনির্বাচনে স্বতন্ত্র প্রার্থী মনোরঞ্জন শীল গোপাল সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।

                                               

দিনাজপুর-২

১৯৭৩-১৯৭৯ গঠিত হওয়ার সময় এ আসনটি দেবীগঞ্জ ও বোদা উপজেলা নিয়ে গঠিত ছিল। ১৯৮৪-বর্তমান দিনাজপুর-২ আসনটি দিনাজপুর জেলার বোচাগঞ্জ উপজেলা ও বিরল উপজেলা নিয়ে গঠিত।

                                               

নড়াইল-২

নড়াইল-২ আসনটি নড়াইল জেলার লোহাগড়া উপজেলা, আর কালোড়া ইউনিয়ন, বিচালি ইউনিয়ন, ভদ্রবিলা ইউনিয়ন, সিঙ্গাশোপুর ইউনিয়ন, শেখ হাটি ইউনিয়ন ব্যতীত নড়াইল সদর উপজেলা নিয়ে গঠিত।

                                               

নীলফামারী-১

নীলফামারী-১ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি নীলফামারী জেলায় অবস্থিত জাতীয় সংসদের ১২তম এবং জেলার ১ম সংসদীয় আসন। এ আসন থেকে নির্বাচিত বর্তমান সংসদ সদস্য হলেন আফতাব উদ্দিন সরকার, তিনি ২০১৪ সাধারণ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ ...

                                               

নীলফামারী-২

নীলফামারী-২ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি নীলফামারী জেলায় অবস্থিত বাংলাদেশ সংসদের ১৩তম এবং জেলার ২য় সংসদীয় আসন। এ আসনের বতর্মান সংসদ সদস্য হলেন আওয়ামী লীগের আসাদুজ্জামান নুর, তিনি ২০০১ থেকে তৃতীয় বারের জন্য নির ...

                                               

নীলফামারী-৪

১৯৮৪-২০১৪ নীলফামারী-৪ আসনটি সৈয়দপুর উপজেলা ও কিশোরগঞ্জ উপজেলার ৬টি ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত ছিল। ২০১৮-বর্তমান এ আসনটি নীলফামারী জেলার সৈয়দপুর উপজেলা এবং কিশোরগঞ্জ উপজেলা নিয়ে গঠিত।

                                               

নোয়াখালী-১

নোয়াখালী-১ আসনটি নোয়াখালী জেলার চাটখিল উপজেলা এবং সোনাইমুড়ি উপজেলার আমিশাপাড়া ইউনিয়ন, চাষীরহাট ইউনিয়ন, জয়াগ ইউনিয়ন, দেউটি ইউনিয়ন, নদনা ইউনিয়ন, বজরা ইউনিয়ন ও সোনাপুর ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত।

                                               

নোয়াখালী-৪

নোয়াখালী-৪ আসনটি নোয়াখালী জেলার সুবর্ণচর উপজেলা এবং নোয়াখালী সদর উপজেলাচর মটুয়া ইউনিয়ন, আন্ডাচর ইউনিয়ন, বিনোদপুর ইউনিয়ন, দাদপুর ইউনিয়ন, ধর্মপুর ইউনিয়ন, এওজবালিয়া ইউনিয়ন, কাদির হানিফ ইউনিয়ন, কালাদরফ ইউনিয়ন, নোয়াখালী ইউনিয়ন, নোয়ান্ন ...

                                               

বগুড়া-৭

১৯৯৬ সালের সাধারণ নির্বাচনে খালেদা জিয়া পাঁচটি আসনে দাড়ান: বগুড়া-৬, বগুড়া-৭, ফেনী-১, লক্ষ্মীপুর-২ ও চট্টগ্রাম-১। সবগুলি আসনে জয়ী হবার পর, তিনি ফেনী-১ আসনকে প্রতিনিধিত্ব করার জন্য বেচে নেন ও এরফলে চার দুই আসনে উপনির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ১৯৯৬ সা ...

                                               

বরগুনা-২

বরগুনা-২ নির্বাচনী এলাকা ১৯৮৪ সালে গঠিত হয়েছিল, যখন পটুয়াখালী জেলাকে ভেঙ্গে দুটি জেলায় বরগুনা ও পটুয়াখালী ভাগ করা হয়েছিল। ২০০৮ সালের সাধারণ নির্বাচনের আগে, বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন ২০০১ সালের আদমশুমারির প্রকাশিত জনসংখ্যার পরিবর্তন প্রতিফলিত ক ...

                                               

বরগুনা-৩

বরগুনা-৩ বাংলাদেশের একটি বিলুপ্ত সংসদীয় আসন। বাংলাদেশের বরগুনা জেলার আমতলী ও তালতলী উপজেলা নিয়ে এ সংসদীয় আসন গঠিত হয়েছিল। নবম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে নির্বাচনী গেজেটে এই আসনটি বিলুপ্ত ঘোষণা করা হয়েছিল। এই আসনের সর্বশেষ সাংসদ ছিলেন শেখ হাসিনা।

                                               

বাগেরহাট-১

বাগেরহাট-১ সংসদীয় আসনটি ১৯৮৪ সালে গঠিত হয়, যখন পুরাতন খুলনা জেলাকে ভেঙ্গে তিনটি জেলা খুলনা, বাগেরহাট ও সাতক্ষীরা করা হয়েছিল। এটি পূর্ববর্তী খুলনা-১ আসন ছিল।

                                               

ভোলা-১

১৯৮৪ সালে যখন বাকেরগঞ্জ জেলাকে ভেঙে চারটি জেলায় ভাগ করা হয়, তখন বাকেরগঞ্জ-১ থেকে এ সংসদীয় আসনটি সৃষ্টি করা হয়।

                                               

মাদারীপুর-৩

মাদারীপুর-৩ আসনটি মাদারীপুর জেলার কালকিনী উপজেলা এবং মাদারীপুর সদর উপজেলার খোয়াজপুর ইউনিয়ন, ঝাউদি ইউনিয়ন, ঘটমাঝি ইউনিয়ন, মোস্তফাপুর ইউনিয়ন ও কেন্দুয়া ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত।

                                               

মানিকগঞ্জ-২

মানিকগঞ্জ-২ আসনটি মানিকগঞ্জ জেলার সিঙ্গাইর উপজেলা, হরিরামপুর উপজেলা এবং মানিকগঞ্জ সদর উপজেলার হাটিপাড়া ইউনিয়ন, ভাড়ারিয়া ইউনিয়ন, পুটাইল ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত।

                                               

মুন্সিগঞ্জ-১

মাহি বি চৌধুরী তার বাবার সাথে বিকল্পধারা বাংলাদেশ নামে একটি নতুন রাজনৈতিক দল গঠন করতে ২০০৪ সালের ১০ মার্চ সংসদ থেকে পদত্যাগ করেন। তার পদত্যাগের ফলে জুন ২০০৪ সালে সংসদীয় আসনে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়, যাতে বিএনপির প্রার্থী মোমিন আলীকে হারিয়ে মাহ ...

                                               

মৌলভীবাজার-১

মৌলভীবাজার-১ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি মৌলভীবাজার জেলায় অবস্থিত জাতীয় সংসদের ২৩৫নং আসন। এর বর্তমান সংসদ সদস্য আওয়ামী লীগের শাহাব উদ্দিন।

                                               

মৌলভীবাজার-২

মৌলভীবাজার-২ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি মৌলভীবাজার জেলায় অবস্থিত জাতীয় সংসদের ২৩৬নং আসন। ২০১৮ সালের নির্বাচনে এ আসন থেকে নির্বাচিত হন গণফোরামের সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমেদ।

                                               

মৌলভীবাজার-৩

মৌলভীবাজার-৩ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি মৌলভীবাজার জেলায় অবস্থিত জাতীয় সংসদের ২৩৬নং আসন। এ আসনের বর্তমান সংসদ সদস্য হলেন আওয়ামী লীগের নেছার আহমদ।

                                               

মৌলভীবাজার-৪

মৌলভীবাজার-৪ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি মৌলভীবাজার জেলায় অবস্থিত জাতীয় সংসদের ২৩৮নং আসন। এ সংসদীয় আসন থেকে নির্বাচিত বর্তমান সাংসদ হলেন আব্দুস শহীদ।

                                               

রংপুর-২

জুন ১৯৯৬ সালের সাধারণ নির্বাচনে হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ পাঁচটি আসনে দাড়ান: রংপুর-২, রংপুর-৩, রংপুর-৫, রংপুর-৬, ও কুডিগ্রাম-৩। সবগুলি আসনে জয়ী হবার পর, তিনি রংপুর-৩ আসনকে প্রতিনিধিত্ব করার জন্য বেছে নেন; এর ফলে বাকী চার আসনে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হ ...

                                               

রংপুর-৩

রংপুর-৩ হল বাংলাদেশের জাতীয় সংসদের ৩০০টি নির্বাচনী এলাকার একটি। এটি রংপুর জেলায় অবস্থিত জাতীয় সংসদের ২১নং আসন। এ আসনের বর্তমান সাংসদ জাতীয় পার্টির সাদ এরশাদ, তিনি ২০১৯ উপনির্বাচনে নির্বাচিত হন।

                                               

রংপুর-৫

জুন ১৯৯৬ সালের সাধারণ নির্বাচনে হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ পাঁচটি আসনে দাড়ান: রংপুর-২, রংপুর-৩, রংপুর-৫, রংপুর-৬, ও কুডিগ্রাম-৩। সবগুলি আসনে জয়ী হবার পর, তিনি রংপুর-৩ আসনকে প্রতিনিধিত্ব করার জন্য বেছে নেন; এর ফলে বাকী চার আসনে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হ ...

                                               

রংপুর-৬

জুন ১৯৯৬ সালের সাধারণ নির্বাচনে হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ পাঁচটি আসনে দাড়ান: রংপুর-২, রংপুর-৩, রংপুর-৫, রংপুর-৬, ও কুডিগ্রাম-৩। সবগুলি আসনে জয়ী হবার পর, তিনি রংপুর-৩ আসনকে প্রতিনিধিত্ব করার জন্য বেছে নেন; এর ফলে বাকী চার আসনে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হ ...